টাইগার-ভক্তদের মেনে চলা অদ্ভুত ৭ কুসংস্কার

মাঠে খেলে এগারোটা টাইগার, আর গ্যালারী থেকে শুরু করে সারা দেশজুড়ে নিরন্তর সমর্থন দিয়ে যায় অসংখ্য টাইগার-ভক্ত। দলের স্বার্থে, টাইগাররা যেন একটু ভালো খেলে, সেজন্য তাদের অনেকেই মেনে চলেন বিচিত্র সব কুসংস্কার।

 

বাংলাদেশ ক্রিকেট টীম

 

bd cricket team

 

 

চলুন দেখে আসি তেমন কিছু কুসংস্কারঃ

 

 

১। বাংলাদেশ ব্যাটিংয়ে থাকলে কেউ কেউ নড়া-চড়া বন্ধ করে দেন। পুরো ব্যাটিংয়ের সময় একচুল নড়েন না। নড়লেই নাকি উইকেট পড়ে! তারচেয়ে বরং পাথরের মত বসে থাকাই ভালো!

 

 

২। এই ব্যাপারটা ঘটে সচরাচর মায়েদের সাথে। খেলা শুরুর সাথে সাথে তারা বসে যান জায়নামাজে, খেলা চলাকালীন পুরো সময়টা আকুল হয়ে প্রার্থনা করেন সৃষ্টিকর্তার দরবারে। মাঠে খেলতে থাকা এগারোটা সন্তানের জন্য এছাড়া আর কি-ই বা করতে পারেন মমতাময়ী মা!

 

 

৩। এমন একজনকে চিনি, যিনি বাংলাদেশ ফিল্ডিংয়ে নামলে একটু পর পর নিয়ম করে বাথরুমে যান! কারন তিনি বাথরুমে গেলেই নাকি বিপক্ষ দলের উইকেট পড়ে!

 

 

৪। কিছু কিছু অভাগা টাইগার ফ্যান তো বন্ধুদের গঞ্জনার চোটে স্টেডিয়াম বা টিভির ধারে কাছে ঘেঁষতেই পারেন না। তাদের বন্ধুদের দাবী, তারা খেলা দেখলেই বাংলাদেশের উইকেট পড়ে! সুতরাং তাদের খেলা দেখা নিষেধ!

 

 

৫। একজনকে চিনি, খেলা চলাকালীন সময়ে ফ্লোরে উপুড় হয়ে একটা বিচিত্র ভঙ্গিতে শুয়ে থাকেন, সেভাবেই খেলা দেখেন পুরো সময়। কনকনে শীতেও ঠাণ্ডা ফ্লোরে শুয়ে খেলা দেখেন তিনি। এতে নাকি বাংলাদেশ ভালো খেলে!

 

 

৬। একজনকে চিনি, খেলা চলাকালীন একেবারে বোবা হয়ে যান। পেটে বোমা মারলেও একেবারে চুপ! একদিন নাকি খেলার সময় কনফিডেন্টলি বলেছিলেন, বাংলাদেশ জিতবে। সেদিন বাংলাদেশ হেরে গিয়েছিল শোচনীয়ভাবে। তারপর থেকে খেলা হলেই তিনি বোবা!

 

 

৭। শেষ করবো একজন অন্ধ সমর্থকের পাগলামি দিয়ে। ২০১২ সালে এশিয়া কাপের ফাইনালে হেরে গিয়েছিল বাংলাদেশ। স্টেডিয়াম থেকে হাউমাউ করে কাঁদতে কাঁদতে বাড়ি ফিরেছিলেন তিনি। তারপর থেকে বাংলাদেশের খেলার সময় ছটফট করেন তিনি, এর-তার কাছে খবর নেন কত রান, কত উইকেট, কিন্তু নিজে একটিবারের জন্যও খেলা দেখেন না। ভুলক্রমে চোখ পড়লে চোখ সরিয়ে নেন তক্ষুনি।তার ধারণা, তিনি খেলা না দেখলেই ভালো খেলবে তার দল, জিতবে, কখনো হারবে না!

 

 

 

সমর্থকদের এমন নিঃশর্ত ভালোবাসা আর কোন দল পেয়েছে কবে.লিখুন আমার সাইটে www.bdtipstech.com এ পোস্ট লিখুন আর রিচার্জ নিন মোবাইলে

Author:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *