নতুন খবর ক্যান্সার চিকিৎসায় জন্য ব্যাবহার করা হবে সোনা

 নতুন খবর ক্যান্সার চিকিৎসায় জন্য ব্যাবহার করা হবে সোনা

সোনা মূল্যবান ধাতু হলেও এটি আসলে যে কাজের জিনিস তা আবারো প্রমাণিত হল চিকিৎসা বিজ্ঞানের গবেষণায়। দুরারোগ্য ব্যাধি ক্যান্সার শনাক্ত করার আধুনিক এক প্রযুক্তি হল কোয়ান্টাম উট দিয়ে ক্যান্সার কোষ অণুবীক্ষণ যন্ত্রে দৃশ্যমান করা। এটি সফল এক পদ্ধতি হলেও কোষ এবং মানবদেহের জন্য বিষক্রিয়া সৃষ্টি করতে পারে। তাই এ প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ নিরাপদ নয়; কিন্তু বিজ্ঞানীরা সমপ্রতি ক্যান্সার কোষ শনাক্ত করার এমন এক পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন, যা সম্পূর্ণ নিরাপদ এবং অনেক বেশি কার্যকর। আর সেটি হল স্বর্ণধূলি দিয়ে পরীক্ষা। সোনাকে বিচূর্ণ করে ন্যানো পর্যায়ের অতি সূক্ষ্ম আণুবীক্ষণিক ধূলিতে রূপান্তরিত করে ক্যান্সার কোষের মার্কার হিসেবে ব্যবহার করে দেখা গেছে এটি অত্যন্ত কার্যকর। আর সোনার একটি বড় গুণ এটি নন টক্সিক। দেহের কোনো ক্ষতি করে না। তাই ক্যান্সার কোষ শনাক্ত করার জন্য এ স্বর্ণধূলি সহজেই মানবদেহে ইনজেক্ট করা যায়। আর এ ধূলি ক্যান্সার কোষের গায়ে জড়িয়ে উজ্জ্বল আভায় উদ্ভাসিত হয়। যার ফলে বিজ্ঞানীরা অতি সহজে ক্যান্সার কোষ চিহ্নিত করতে পারেন। ক্যান্সার শনাক্ত করার এ নতুন পদ্ধতি নিয়ে কাজ করছেন বাবা-ছেলের একটি টিম। বাবা ড. মোস্তফা আল সাইয়েদ জর্জিয়া ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজি এবং ছেলে আইভান আল সাইয়েদ সানফ্রান্সিসকো মেডিকেল সেন্টারের গবেষক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *