মূলদ সংখ্যা ও অমূলদ সংখ্যা | অমূলদ সংখ্যা চেনার উপায়

অমূলদ সংখ্যা নির্ণয় ,অমূলদ সংখ্যা কি কি ,অমূলদ সংখ্যা কাকে বলে ,মূলদ ও অমূলদ সংখ্যা বের করার নিয়ম ,অমূলদ সংখ্যা চেনার উপায় ,মূলদ ও অমূলদ সংখ্যার পার্থক্য

মূলদ সংখ্যা : মূলদ সংখ্যা হচ্ছে সেই সকল বাস্তব সংখ্যা যাদের p/q আকারে প্রকাশ করা যায়। যেখানে p এবং q উভয় পূর্ণ সংখ্যা এবং q≠0

প্রশ্ন :


নিচের কোন সংখ্যাটি এর মধ্যবর্তী মূলদ সংখ্যা?

(বিসিএস ১২তম )

–   1.5

ব্যাখ্যা :

এখানে, √২ ও √৩ অমূলদ সংখ্যা।

√২=১.৪১ (প্রায়)

√৩=১.৭১(প্রায়)

সুতরাং ১.৫ ই হবে √২ ও √৩ এর মূলদ সংখ্যা।

অমূলদ সংখ্যা : যে সব বাস্তব সংখ্যা মূলদ সংখ্যা নয়, অর্থাৎ যাদেরকে দুইটি পূর্ণ সংখ্যার অনুপাত হিসেবে প্রকাশ করা যায় না তাদেরকে বলা হয় অমূলদ সংখ্যা।

প্রাচীন গ্রিসে পীথাগোরাস সম্পর্কিত অমুলদ সংখার ইতিহাসটি বেশ রোমাঞ্চকর। হিপ্পসাস নামক পীথাগোরাসের শিষ্য √2 আবিস্কার করেন। হিপ্পসাস পীথাগোরাসের সদ্য আবিস্কৃত সমকোণী ত্রিভুজের সূত্র ব্যবহার করে, দুই বাহুর দৈর্ঘ্য ১ একক ধরে, অতিভুজ বের করতে গিয়ে একটা গোল বাধিয়ে ফেলেন। তিনি কিছুতেই অতিভুজ হিসাবে যে √2 পেয়েছেন তার মান আর হিসাব করতে পারছিলেন না। পরে বুঝলেন যে, এটা আর সব অন্য মুলদ সংখ্যার মত নয়, যাদের দুইটি পুর্ণ সংখ্যার ভাগফল আকারে লেখা সম্ভব। পরবর্তিতে আরো এরকম সংখ্যা আবিস্কৃত হয়। আর গণিতবিদেরা এদের নাম দেন অমুলদ সংখ্যা। শ্রীনিবাস রামানুজন বলেছিলেন যে √2 এর মান যতো খুশি ততো ঘর। অতি সুপরিচিত একটি অমুলদ সংখ্যা হচ্ছে অভিকর্ষজ ত্বরণ(g) g=৯.৮৩২১৭ ms-2

Author: drmasud

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *