যৌতুক প্রথা অনুচ্ছেদ | বাংলা ২য় পত্র অনুচ্ছেদ রচনা

যৌতুক প্রথা অনুচ্ছেদ

প্রশ্নঃ যৌতুক প্রথা নিয়ে বাংলা অনুচ্ছেদ লিখ ।

উত্তরঃ

যৌতুক প্রথা অনুচ্ছেদ

বিবাহ উৎসবে বরকে কনের বাড়ি থেকে উপঢৌকন ও নগদ অর্থ প্রদান করার কু-প্রথাকে যৌতুক প্রথা বলে। এ প্রথা টি নারী সমাজের প্রতি হীনমন্যভাব পোষণের জন্য উৎপত্তি হয়েছে। সমাজের এক শ্রেণির মানুষের অন্যের অর্থ সম্পদের প্রতি লোভ-লালসাই যৌতুক প্রথার মূল কারণ। বিত্তশালীরাও এ প্রথাকে উৎসাহিত করে। তারা মেয়ের বিবাহের সময় যৌতুক দেয়। গরীব এবং নিরক্ষর মেয়েরাই এই প্রথার চরম শিকার হতে হয় । আজকাল একজন বাবা যৌতুক দেওয়া ব্যতীত মেয়েকে বিবাহ দেওয়ার কথা চিন্তা করতে পারে না । যৌতুক প্রথার ফলে নারী নির্যাতন হয়। অনেক ক্ষেত্রে মেয়ের পিতা বিবাহের সময় প্রতিশ্রুত যৌতুক দিতে ব্যর্থ হলে মেয়েকে অত্যাচার করে মেরে ফেলা হয়। যৌতুকের শিকার হয়ে বহু মেয়ে আত্মহননের পথ বেছে নেয় । যৌতুক প্রথা একটি সামাজিক অপরাধ। আমাদের দেশে যৌতুক গ্রহণ আইনত-দন্ডণীয় অপরাধ হলেও এ প্রথা টি সমাজে বিদ্যমান। তাই এ প্রথাকে দূর করার জন্য আইনের কঠোর প্রয়োগ ও সামাজিক সচেতনতা প্রয়োজন। কেবল নারী শিক্ষার মাধ্যমেই এ কু-প্রথাকে দূর করা যাবে। পিতা-মাতার উচিত মেয়েকে যৌতুক দেওয়ার পরিবর্তে তার দেখাপড়ার জন্য টাকা-পয়সা খরচ করা। এ কু-প্রথার বিরুদ্ধে আমাদের জনমত সৃষ্টি করতে হবে। আমাদের প্রতীজ্ঞা নিতে হবে বিবাহের সময় যৌতুক দিবো না এবং গ্রহণও করব না।

—সমাপ্তি–

আরও জানুনঃ

সব গুরুত্বপূর্ণ বাংলা অনুচ্ছেদগুলোর তালিকা

যৌতুক প্রথা সম্পর্কে আপনার মূল্যবান মতামত প্রকাশ করুন। যৌতুক প্রথা অনুচ্ছেদটি কেমন লেগেছে ? এতে কি সংযোজন করা যায় বা বাদ দেওয়া প্রয়োজন বলে আপনি মনে করেন ? মন্তব্য করে জানান আমাদের ।

Author: Biddut

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *